নিউইয়র্কে ফিজিওথেরাপি চিকিৎসার বিশ্বস্ত নাম ডা. ইমরুল কবির

0
36

নিউইয়র্ক: ফিজিওথেরাপি চিকিৎসায় নিউইয়র্কবাসীর বিশ্বস্থ বন্ধুতে পরিণত হয়েছেন ডা. ইমরুল কবির। দিনে দিনে তিনি রোগীদের আস্থার প্রতীক হিসেবেও আভির্ভূত হচ্ছেন। কর্মজীবনে যে চারটি দেশ থেকে স্বাস্থ্য সেবা নিয়েছেন তা পুরোপুরি তা তিনি উদার করে দিচ্ছেন রোগীদের মাঝে। ডা. ইমরুল কবির বিগত ১৭ বছর ধরে ফিজিওথেরাপি চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছেন। কর্মজীবনে তিনি চারটি দেশে বিভিন্ন স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠানে সেবা দিয়েছেন। ৯৭ সালে তিনি ফিজিক্যাল থেরাপিতে স্নাতক ডিগ্রী লাভ করেন। ২০১০ সালে ইউনিভার্সিটি অব এরিজোনা থেকে ডক্টর অব ফিজিক্যাল থেরাপি ডিগ্রী (ডি,পি,টি) লাভ করেন।
১৯৯৮ সালে নিউইয়র্কের লাইসেন্স পাওয়ার পর থেকে দীর্ঘ ১৭ বছর প্র্যাক্টিস করে আসছেন। নগরীর অন্যতম ব্যস্ত বাঙ্গালী অধ্যুষিত এলাকা জ্যামাইকা হিল সাইডে তিনি তার ক্লিনিক ‘এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি সেন্টার’ স্থাপন করেছেন।
অত্যাধুনিক সরঞ্জামের পাশাপাশি এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি সেন্টারে আছে অভিজ্ঞ টেকনিশিয়ান। আছে মহিলাদের জন্য মহিলা থেরাপিস্ট। ডা. ইমরুল কবির সরাসরি তত্ত্বাবধানে ফিজিক্যাল থেরাপির সেবার মান নিয়ন্ত্রণ করা হয়। বাথ, ব্যাথা, বার্ধক্যজনিত সমস্যা, দুর্ঘটনা, পক্ষাঘাত, অসাড়তা, কর্মশক্তি লোপ পাওয়া সহ সব ধরনের শারিরীক সমস্যায় সেবা দেওয়া হয়ে থাকে। শিশু, কিশোর, কিশোরী, যুবক,যুবতী, বৃদ্ধ, বৃদ্ধা সকলেরই শারীরিক স্বাস্থ্যের আশার কেন্দ্র হতে পারে এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি সেন্টার।

AAEAAQAAAAAAAAO5AAAAJDllOWVlNWJlLTQxYzMtNDBhMS1hN2FjLTczNmUyNWI3MWExMQ
ড. ইমরুল কবির জানান বয়স, অতিরিক্ত পরিশ্রম, দুর্ঘটনা ইত্যাদি কারনে বেশীরভাগ মানুষ বিভিন্ন শারিরীক সমস্যায় আক্রান্ত হয়ে থাকে। পিঠ, হাঁটু, গোড়ালি, হাত-পা ব্যাথায় বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে থাকে। তাছাড়া নিউ ইয়র্কে বসবাসরত বাংলাদেশী বাংলাদেশী কমিউনিটির একটি বড় অংশ বয়োবৃদ্ধ যাদের অনেকেই আমাদের মা, বাবা, চাচা চাচী অথবা আমাদের দাদা দাদী, নানা নানীর পর্যায়ের ও রয়েছেন। বয়সের কারনে তাদের অনেকেই শারিরীকভাবে অচল হয়ে পড়েছেন।
তিনি বলেন, ঔষধপত্র সেবন ও ইনজেকশনের ব্যবস্থা করলেও অনেক সময় রোগী পুরোপুরী সুস্থ হয়ে উঠেন না তাই ব্যথামুক্তিতে ফিজিক্যাল থেরাপী ফলপ্রসু ভুমিকা রাখে। তাছাড়া ফিজিক্যাল থেরাপী সম্পুর্ণ নিরাপদ ও প্বার্শ প্রতিক্রিয়াহীন।
ডা. ইমরুল কবির অত্যন্ত সফলতার সাথে ঘাড়, পিঠ, কাঁধ, হাঁটু, গোড়ালী, কুনই, হাত-পা, মাথা, সাইকিয়াটিক, পক্ষঘাত, গাড়ির দুর্ঘটনার ব্যাথাসহ নানা ধরনের ব্যাথার চিকিৎসা করে আসছেন সুদীর্ঘ সময় ধরে। ফিজিক্যাল থেরাপী স্বাস্থ্যসেবায় তিনি পৃথিবীর সবচেয়ে উন্নতমানের যন্ত্রপাতি ব্যবহার করে থাকেন। তাছাড়া মহিলাদের জন্য রয়েছে মহিলা টেকনিশিয়ান।
এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি সেন্টারে সকল প্রধান ইন্স্যুরেন্স গ্রহণ করা হয়ে থাকে। দূর থেকে আসা রোগীদের জন্য কমপি¬মেন্টারি মেট্রোকার্ড উপহার দেওয়া হয়ে থাকে এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি সেন্টারের পক্ষ থেকে।
তার ক্লিনিক নগরীর হিলসাইড এভিনিউ এবং ১৬৮ প্লেসে সাগর রেস্তোরা ভবনের দোতলায় অবস্থিত। ফিজিক্যাল থেরাপি সেবা নেওয়ার লক্ষে বাঙালি কম্যুনিটি যাতে খুব সহজেই পৌছাতে পারে সে লক্ষেই তিনি এই স্থান বেছে নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন। ডঃ ইমরুল কবিরের ক্লনিকের ঠিকানাঃ ১৬৮-২৫ হিলসাইড এভিনিউ, দ্বিতীয় তলা, জ্যামাইকা, নিউ ইয়র্ক- ১১৪৩২ ফোনঃ ৩৪৭-৪৮৪-০২৩১.
এক্টিভ হিলিং ফিজিক্যাল থেরাপি ক্লিনিক প্রতি সপ্তাহে সোমবার থেকে শুক্রবার বেলা ৩টা থেকে রাত ৮টা এবং শনিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত খোলা থাকে। যেকোন ধরনের ব্যাথা মুক্তি, প্রশমনের লক্ষ্যে সবাই উক্ত ঠিকানায় সরাসরি যোগাযোগ করতে পারেন অথবা ফোন করে এপয়েন্টমেন্ট নিতে পারেন।
সদা হাস্যোজ্জল ড. ইমরুল কবির নিজ কমিউনিটিতে স্বাস্থ্য সেবা দিতে পেরে খুবই আনন্দিত। গতানুগতিক ফিজিক্যাল থেরাপির চেয়ে এক ধাপ এগিয়ে ক্রমাগত গুনগত মান উন্নয়নের মাধ্যেমে সকল বয়সের সকল শারিরীক সমস্যার আরোগ্য, রোগ উপশম করতে ডঃ ইমরুল কবির দৃঢ প্রতিজ্ঞ। এবং ইতিমধ্যে তিনি খুব সুপরিচিত এবং জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন। একজন বাংলাদেশী স্বাস্থ্যসেবা দানকারী হিসেবে বিদেশে এসে জনসেবা করে স্বদেশের সুনাম এবং মর্যাদা বৃদ্ধি করে যাচ্ছেন এটা প্রতিটি বাংলাদেশীর জন্য গর্বের বিষয় এবং সবারই সহযোগিতা পাওয়ার যোগ্য।